Latest Newsসাম্প্রতিক খবর


November 5, 2018

SFDC revenue increases more than 1.5 times during puja season

SFDC revenue increases more than 1.5 times during puja season

The State Fisheries Development Corporation (SFDC) has done very good business during this Durga Puja festivities. It had set up 26 stalls at various pandals. Combining the earnings from the stalls, online orders and its Nalban restaurant, the organisation did business worth Rs 44.5 lakh, a big jump from the Rs 27 lakh during the 2017 Durga Puja, thus an increase by 1.65 times.

The break-up is as follows: Rs 34 lakh from the 26 stalls, Rs 7 lakh through online orders, Rs 3.5 lakh from the All Fish Restaurant at Nalban.

The difference this time has been not only because of the orders received through the SFDC app, Smart Fish but also an increase in the number of stalls set up. The stalls were packed this time on all days, all through Kolkata.

This time, the stalls also sold raw fish along with the usual ready-to-eat items. Hence, sales went on all through the days, and late into the nights.

Another attraction at the stalls this time was the Puja bhog. The restaurant at Nalban served buffet comprising of eight to nine fish dishes, and that too at only at Rs 399.

Source: Khabar 365 Din


নভেম্বর ৫, ২০১৮

পুজোতে দেড়গুণ আয় বাড়ল রাজ্য মৎস্য উন্নয়ন নিগমের

পুজোতে দেড়গুণ আয় বাড়ল রাজ্য মৎস্য উন্নয়ন নিগমের

পুজো মানেই যে পেট পুজোর একটা বড় অবদান থাকে, তাতে সন্দেহ নেই। এই বিষয়টি অনেক আগে থেকে আঁচ করেছিল রাজ্য মৎস্য উন্নয়ন নিগম। সেইমত এবারের পুজোতে ২৬টি স্টল দিয়েছিল তারা। ফলে গত বছরের তুলনায় এবারে নিগমের আয় বাড়ল দেড়গুণ। মোট সাড়ে ৪৪ লক্ষ টাকার ব্যবসা করেছে নিগম এবারের পুজোতে।

২৬টি স্টল থেকে আয় হয়েছে ৩৪ লক্ষ টাকার, মোবাইল অ্যাপের সাহায্যে বাড়ি থেকে খাবারের অর্ডার যারা দিয়েছেন, তাঁদের থেকে লাভ হয়েছে ৭ লক্ষ টাকা। আর নলবনের অল ফিশ রেস্তোরাঁ থেকে আয় হয়েছে সাড়ে তিন লক্ষ টাকা। ২০১৭ সালের পুজোতে নিগমের মোট আয় হয়েছিল ২৭ লক্ষ টাকা।

অ্যাপের মাধ্যমে অতিরিক্ত ৭ লক্ষ টাকার আয় হয়েছে এবছর। এর পাশাপাশি গত বছরের তুলনায় এবছর স্টলের সংখ্যা বেড়েছে। উত্তর কলকাতার শোভাবাজার থেকে শুরু করে উত্তর ২৪ পরগনার শ্রীভূমি, দমদম পার্ক, বিধাননগর, দক্ষিণ কলকাতার গোলপার্ক এবং বেহালার কয়েকটি পুজোতে এবারে স্টল দেওয়া হয়েছিল। স্টলগুলিতে মানুষের চাহিদাও ছিল তুঙ্গে।

এবারে স্টলগুলিতে মাছের পদ রেডি টু ইট হিসেবে বিক্রী করার সঙ্গেই কাঁচা মাছ বিক্রীরও ব্যবস্থা রাখা হয়েছিল। এর ফলে সারাদিন ধরেই ওই স্টলগুলিতে মাছ বিক্রীর পরিমাণ ছিল চোখে পড়ার মত। বর্তমানে রাজ্যের মৎস্য নিগম সারা দেশের কাছে নতুন মাছ উৎপাদনে চোখে পড়ার মত সাফল্য পেয়েছে।

এছাড়া, নিগমের স্টলের এবারের মূল আকর্ষণ ছিল পুজোর ভোগ। মানুষের মধ্যে এই ভোগের চাহিদাও ছিল দেখার মত। এছাড়া, নলবনের অল ফিশ রেস্তোরাঁয় এই প্রথম বুফে সিস্টেমে ৮ থেকে ৯ রকমের মাছের স্বাদকে আস্বাদ করার সুযোগ দিয়েছিল তাও আবার মাত্র ৩৯৯ টাকায়।

সৌজন্যেঃ খবর ৩৬৫ দিন