Latest Newsসাম্প্রতিক খবর


November 10, 2018

Bangla CM inaugurates Kolkata International Film Festival at a star-studded ceremony

Bangla CM inaugurates Kolkata International Film Festival at a star-studded ceremony

Chief Minister Mamata Banerjee today inaugurated the 24th Kolkata International Film Festival (KIFF) at a star-studded ceremony. The inaugural ceremony which took place at the Netaji Indoor Stadium, Kolkata was attended by the famous Iranian director Majid Majidi, Dadasaheb Phalke awardee Soumitra Chatterjee, Amitabh and Jaya Bachchan, the State’s brand ambassador, Shah Rukh Khan, as well as Waheeda Rehman, Nandita Das, Mahesh Bhatt.

Dignitaries from other countries – Phillip Noyce, Jil Bilcock, Simon Baker – were present as well, along with artistes and members of the Bengali film fraternity. The highlight of this year’s festival is 100 years of Bengali cinema, and there would be films by legends like Satyajit Ray, Ritwik Ghatak, Mrinal Sen and others.

The theme country this year is Australia, to be represented by film editor Jill Elizabeth Bilcock, and film-makers Phillip Noyce and Simon Becker. The Special Focus country this year would be Tunisia.

Highlights of the Chief Minister’s speech:

Your presence encourages us. Bengal welcomes all of you. Enjoy the magic of cinema in Bengal.

More than 70 countries are participating in the festival. More than 170 films will be screened. Australia is our partner country this year.

From Amitabh Bachchan to Soumitra Chatterjee, Shah Rukh to Prosenjit, to the younger generation of actors – everyone is present here.

On the occasion of 100 years of Bengali cinema we pay our homage to all the stalwarts, the artistes who took cinema to great heights.

We are blessed to have legendary figures like Madhabi Di, Sabitri Di in our midst.

If our industry gets the support, we can beat Hollywood, in terms of talent.

Bengal is the cultural capital of not only India but the world. We are the best in every sphere.

Next year we will celebrate the 25th year of Kolkata International Film Festival. We seek the vision of AB, SRK on how to celebrate it in a big way.

KIFF had lost its charm in the past, we restored it after coming to power.

We have to honour our technicians too. Our industry is incomplete without them.

I agree with Mahesh (Bhatt) Ji. Our country needs a vision.

Only in Netaji Indoor Stadium, Kolkata more than 20,000 people watch a film together in one venue. Nowhere in the world so many people watch a film together.

To commemorate the completion of 100 years of Bengali cinema, we will screen Antony Firingee as the inaugural film this year.

Why will we not organise festivals? Festivals are for all. Compete with us on the plank of development.

Unity is strength. Let us all stay united.


নভেম্বর ১০, ২০১৮

নেতাজি ইন্ডোরে চাঁদের হাট, মুখ্যমন্ত্রীর হাত ধরে উদ্বোধন হল চলচ্চিত্র উৎসবের

নেতাজি ইন্ডোরে চাঁদের হাট, মুখ্যমন্ত্রীর হাত ধরে উদ্বোধন হল চলচ্চিত্র উৎসবের

একটি তারকাখচিত সমাবেশে উদ্বোধন হল ২৪তম কলকাতা আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবের। আজ নেতাজী ইন্ডোর স্টেডিয়ামে এই উৎসবের শুভ উদ্বোধন করেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

এবারের উদ্বোধনী সিনেমা হল, অ্যান্টোনি ফিরিঙ্গী। এই উৎসব চলবে ১৭ নভেম্বর পর্যন্ত। কলকাতা আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবের এবারের অন্যতম আকর্ষণ— বাংলা সিনেমার ১০০ বছর।

মুখ্যমন্ত্রীর বিশেষ আমন্ত্রণে এবারও উৎসবের মঞ্চ আলো করে উপস্থিত ছিলেন অমিতাভ বচ্চন, জয়া বচ্চন, নন্দিতা দাস, সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়। উপস্থিত ছিলেন বাংলার ‘ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসাডর’ শাহরুখ খান, ওয়াহিদা রহমান আর মহেশ ভট্ট। বিদেশী অতিথিদের মধ্যে ছিলেন ইরানের প্রখ্যাত চলচ্চিত্র নির্মাতা মাজিদ মাজিদি, চলচ্চিত্র সম্পাদনার ক্ষেত্রে বিশ্বজোড়া খ্যাতি সম্পন্ন অস্ট্রেলিয়ার জুলিয়ান এলিজাবেথ বিলকক, পরিচালক ফিলিপ নয়েস এবং সায়মন ডেকারও।

মুখ্যমন্ত্রীর বক্তব্যের কিছু অংশ:

আপনাদের উপস্থিতি আমাদের উৎসাহিত করে। বাংলায় আপনাদের সকলকে স্বাগত জানাই। বাংলা সিনেমার জাদু উপভোগ করুন।

৭০এরও বেশী দেশের ১৭০টিরও সিনেমা এই উৎসবে দেখানো হবে। এবছর আমাদের পার্টনার দেশ হল অস্ট্রেলিয়া।

অমিতাভ বচ্চন থেকে শুরু করে সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়, শাহরুখ খান থেকে শুরু করে প্রসেনজিৎ, আমাদের তরুণ অভিনেতারা সকলে এখানে উপস্থিত আছেন।

বাংলা সিনেমার শতবর্ষ উপলক্ষে আমি সেই সকল কিংবদন্তী অভিনেতা ও শিল্পীদের শ্রদ্ধা জানাই যাদের জন্য আজ বাংলা সিনেমা এত সমৃদ্ধ হয়েছে।

আমরা ধন্য মাধবীদি, সাবিত্রীদির মত কিংবদন্তী আজ আমাদের মধ্যে আছেন।

বাংলা সিনেমা ইন্ডাস্ট্রির যা প্রতিভা আছে, তাতে একটু সাহায্য পেলেই আমরা হলিউডকে হারিয়ে দিতে পারি।

বাংলা শুধু সারা দেশেরই নয়, সারা বিশ্বের সাংস্কৃতিক রাজধানী। সব ক্ষেত্রেই আমরা সেরা।

আগামী বছর আমরা কলকাতা চলচ্চিত্র উৎসবের ২৫ বছর উদযাপন করব। আরও বিশালাকারে এই উৎসব কি করে করা যায়, সেই ব্যাপারে আমি অমিতাভ জি ও শাহরুখকে অনুরোধ করব আমাদের পরামর্শ দিতে।

বিগত শাসনকালে কলকাতা আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসব তার গরিমা হারিয়েছিল। আমরা ক্ষমতায় এসে তা পুনরুদ্ধার করেছি।

আমি আমাদের টেকনিশিয়ানদেরও শ্রদ্ধা জানাই। তাদের ছাড়া আমাদের সিনেমা শিল্প অসম্পূর্ণ।

আমি মহেশ ভাটজির সঙ্গে সহমত। আমাদের দেশের একটি সঠিক দিশা চাই।

সারা বিশ্বে একমাত্র নেতাজি ইন্ডোর স্টেডিয়ামেই একসাথে ২০,০০০ এরও বেশি লোক সিনেমা দেখে। আমার ইচ্ছে আছে আগামী বছর এই উদ্বোধনী অনুষ্ঠান সল্ট লেক স্টেডিয়ামে করার, যাতে এক লক্ষ লোক একসাথে সিনেমা দেখতে পারেন।

বাংলার সিনেমার ১০০ বছর উদযাপন করতে আমরা এই বছর ‘এন্টোনি ফিরিঙ্গি’ দিয়ে কলকাতা আন্তর্জাতিক চলচিত্র উৎসব শুরু করছি।

কেন উৎসব হবে না? তাহলে কি মানুষ শুধু কাঁদবে আর দুঃখ করবে? উৎসব সবার। লড়তে পারলে লড়, করতে পারলে কর, ধরতে পারলে ধর।

একতাই শক্তি। আমাদের সকলকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে থাকতে হবে।