Latest Newsসাম্প্রতিক খবর


November 13, 2018

Mamata Banerjee’s message of harmony at Chhath Puja celebrations

Mamata Banerjee’s message of harmony at Chhath Puja celebrations

Chief Minister Mamata Banerjee today participated in Chhath Puja celebrations at various ghats along river Hooghly in Kolkata. First she went to Takta Ghat in Hastings, and then to Dahighat in Khidderpore. Speaking at both the places, the CM gave a message of harmony and unity.

Highlights of the Chief Minister’s speech:

In other states they do not give so many holidays during the Durga Puja. But we give holidays during Chhath Puja. Even tomorrow is a sectional holiday.

We also give holiday for Buddha Jayanti. The Centre has done away with the holiday for Christmas, but in our State, it is a holiday. We respect all religions equally. That is our responsibility. We believe in the tradition of respecting others.

During Chhath Puja, our administrative system, along with the police force, is there to help the devotees, specially our mothers and sisters. The youths of different clubs provide assistance to the administration during this time. These people will be offering support right until the Puja ends. I offer my thanks to them.

In the evening you will be worshipping Goddess Ganga and tomorrow morning you will be worshipping God Surya. Perform the rituals safely and then go back home safely. Be safe.

I pray to the Goddess to keep everyone healthy and provide justice to all. Lakhs of our brothers and sisters across Bengal will be performing Puja at the river banks. We have made arrangements for lights, mikes, police protection and disposal of wastes. If you ever need any help, our Government, our youth, our administration are ready to help you.

I have been coming for Chhath Puja celebrations here since 1985. If I don’t, I feel bad. Earlier these ghats were in bad shape. I repaired them with my MPLAD funds.

A family has several members. Similarly, a society comprises people from various communities. Look at the stage here. It is mini-India.
We eat semui during Eid, halua during Guru Nanak’s birthday; we participate in Christmas as well as Chhath Puja. We participate in all festivals equally.

In Bengal, no one will ill-treat you because you are from Bihar. That is not our culture. We love everyone equally.


নভেম্বর ১৩, ২০১৮

ছট পুজোয় শামিল মুখ্যমন্ত্রী, দিলেন সম্প্রীতির বার্তা

ছট পুজোয় শামিল মুখ্যমন্ত্রী, দিলেন সম্প্রীতির বার্তা

প্রতিবারের মত এবারেও ছট পুজোর অনুষ্ঠানে উপস্থিত হন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। প্রথমে তিনি যান হেস্টিংসে, তারপর তিনি গেছিলেন দহিঘাটে। দুই জায়গাতেই তিনি ছট পুজোর শুভেচ্ছা বার্তা দেন ও সম্প্রীতির বার্তা দেন।

মুখ্যমন্ত্রীর বক্তব্যের কিছু অংশঃ

  • অন্যান্য রাজ্যে দুর্গা পুজোয় এত ছুটি দেয় না। কিন্তু, আমরা সেখানে ছট পুজোতেও দুদিন ছুটি দিই।
  • আমরা বুদ্ধ পূর্ণিমাতেও ছুটি দিই। কেন্দ্র বড়দিনের ছুটি বাতিল করে দিয়েছে। কিন্তু, আমরা ছুটি দিই। কারণ, সকল ধর্মের প্রতি আমার কর্তব্য আছে। আমি চাই, সকল মানুষ সকল মানুষকে শ্রদ্ধা করুক।
  • আজ ছট পুজোয় আমার ভাই বোনেরা দীর্ঘদিন উপবাসে থেকে আজ গঙ্গার ঘাটে যাবেন পুজো করতে। প্রশাসন সমস্ত ঘাটে সাহায্য করার জন্য বুথ তৈরী করেছে। স্থানীয় ক্লাবগুলোও প্রশাসনকে সাহায্য করে। সকলে মিলে কাল সকালে আপনাদের পুজো শেষ হওয়া না পর্যন্ত আপনাদের সঙ্গে থাকবে। আমি তাদেরও অভিনন্দন জানাই।
  • আপনারা মা গঙ্গার পুজো করুন, সূর্যদেবের পুজো করুন। আপনাদের আমার অভিনন্দন। সকলে ধীরে ধীরে ঘাটে যান ও ধীরে ধীরে পুজো সেরে বাড়ি ফিরুন। সবাই ভালো করে পুজো করুন, আনন্দ করুন।
  • আমি প্রতিবার ছটপুজোয় আসি, না এলে আমার ভালো লাগেনা।
  • ১৯৮৪ সালে আমি প্রথম নির্বাচনে জিতেছিলাম। ১৯৮৫ সাল থেকে আমি নিয়মিত এখানে আসি। সেই সময় ঘাটের দশা শোচনীয় ছিল। আমি তখন সাংসদ তহবিল থেকে টাকা দিই ঘাট সংস্কারের জন্য।
  • সকলে নির্বিঘ্নে পুজো করলে তার থেকে বেশী শান্তি কিছুতে পাওয়া যায় না।
  • এক পরিবারে অনেকে থাকেন। সমাজে সব ধর্ম বর্ণের মানুষ মিলে মিশে থাকেন। এখানেও মঞ্চে তাকিয়ে দেখুন, মনে হবে আসল ভারতবর্ষ।
  • ঈদের দিন সিমুই খাই, গুরু নানকের জয়ন্তীতে গুরুদ্বারার হালুয়া খাই, ছটপুজোর ঠেকুয়াও আমায় পাঠান আমার বন্ধুরা। আমি সব পুজোই পালন করি।
  • আপনারা বিহারি বলে বাংলায় আপনাদের সাথে দুর্ব্যবহার হবে, এই আশঙ্কা করবেন না। আমরা সবাইকে সমানভাবে ভালোবাসি। আমাদের এরকম স্বভাব নেই। এখানে ভিন রাজ্যের অনেক বাসিন্দা থাকেন। যারা আমাদের এখানে থাকেন, সবাই আমাদের ভাই বোন। আমরা সবাই সমান।