Latest Newsসাম্প্রতিক খবর


July 6, 2018

New initiatives taken by the Cooperation Department in Bengal

New initiatives taken by the Cooperation Department in Bengal

The Bengal Government’s Cooperation Department has taken several initiatives to improve the reach of cooperative societies across the State by converting cooperative societies into banks, and introducing computerisation and modern banking services. Regular audits of cooperative societies are being conducted and special initiatives are being taken for increasing memberships of cooperative societies.

New initiatives

Overhauling rural cooperative system: The department has set a target of overhauling the entire rural cooperative system and mobilising deposits of about Rs 1 lakh crore in the next two to three years. As a result, cooperative banks and primary agricultural credit societies (PACS) will be able to contribute more effectively towards various Government schemes and extend loans to SHGs. They should be able to extend at least 50 per cent of the almost Rs 40,000 crore loan required annually for crop production and marketing.

Banking for the unbanked: The department has set a target of opening at least 75 cooperative bank branches in unbanked gram panchayats (GP) by the end of financial year 2018-19.

Modern banking: Modern banking facilities, viz., ATM, RTGS, NEFT, etc. are being provided at existing cooperative banks. Till now, 350 branches of West Bengal State Cooperative Bank (WBSCB) and Central Cooperative Bank (CCB) have already been CBS-enabled and 80 ATMs are in operation. Besides, mobile ATM services have also been introduced.

Assistance to PACS: An assistance of Rs 34.75 crore has been given for the computerisation of 2,780 primary agricultural cooperative societies (PACS).

New cold storage units: Construction of six cold storage units has been taken up, having a total capacity of 49,000 MT, which are likely to be completed during the current year.

Regular audit: Initiatives have been taken to conduct timely and regular audit of cooperative societies.

Increasing membership: Special initiatives have been taken to enhance the memberships of cooperative societies.

Samabay Bhavans: The State Government has decided to establish Samabay Bhavans in all the districts to accommodate all offices related to the Cooperation Department under one roof. So far, bhavans have been completed in Purba Bardhaman (Bardhaman), Paschim Bardhaman (Asansol), Bankura, Purulia, North 24 Parganas and Paschim Medinipur. Construction is going on in Malda.

 


জুলাই ৬, ২০১৮

সমবায় দপ্তরের নতুন উদ্যোগ

সমবায় দপ্তরের নতুন উদ্যোগ

সমবায় সমিতিগুলোকে আরও বেশী সুদূরপ্রসারী করতে সমবায় সমিতিগুলোকে ব্যাঙ্কে রূপান্তরিত করার উদ্যোগ নিয়েছে রাজ্য সমবায় দপ্তর। এখানে পাওয়া যাবে সমস্ত আধুনিক ব্যাঙ্কিং পরিষেবা; ব্যাঙ্কগুলি হবে সম্পূর্ণ কম্পিউটারাইজড। দপ্তরের তরফে সমবায় সমতিগুলির নিয়মিত অডিট করা হয় এবং তাদের সদস্য সংখ্যা বাড়ানোর জন্য নানা পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে।

নতুন উদ্যোগ

গ্রামীণ সমবায় ব্যবস্থায় সংস্কার: গ্রামীণ সমবায় ব্যবস্থায় সংস্কার করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে দপ্তর। আগামী দুই তিন বছরের মধ্যে ১ লক্ষ কোটি টাকার তহবিল তৈরী করার উদ্যোগ দপ্তরের। ফল স্বরূপ, সমবায় ব্যাঙ্ক ও প্রাথমিক কৃষি ঋণ সমিতিগুলি বিভিন্ন সরকারি প্রকল্পে সহায়তা করতে পারবে এবং স্বনির্ভর গোষ্ঠীদের ঋণ দিতে সক্ষম হবে। শস্য উৎপাদন ও বিপণনের জন্য বার্ষিক যে ৪০০০০ কোটি টাকা ঋণের প্রয়োজন হয়, তার অন্তত ৫০ শতাংশ এখান থেকে পাওয়া সম্ভব হবে।

প্রত্যন্ত অঞ্চলে ব্যাঙ্কের শাখা খোলা: দপ্তর পরিকল্পনা করেছে ২০১৮-১৯ অর্থবর্ষের মধ্যে যে সকল গ্রাম পঞ্চায়েত অঞ্চলে কোনও ব্যাঙ্ক নেই, সেই সব গ্রাম পঞ্চায়েতগুলিতে অন্তত ৭৫টি ব্যাঙ্কের শাখা খোলা।

আধুনিক ব্যাঙ্কিং: আধুনিক ব্যাঙ্কিং সুবিধা, যেমন, এটিএম, আরটিজিএস, এনইএফটি সবই সমবায় ব্যাঙ্কে পাওয়া যায়। এই মুহূর্তে ৩৫০টি শাখা আছে ওয়েস্ট বেঙ্গল স্টেট কোঅপারেটিভ ব্যাঙ্ক ও সেন্ট্রাল কোঅপারেটিভ ব্যাঙ্কের যেখানে সিবিএস পরিষেবা পাওয়া যায়। এছাড়া ৮০টি স্থায়ী এটিএম আছে ও মোবাইল এটিএম পরিষেবাও চালু করা হয়েছে।

পিএসিএস কে সহায়তা: ২৭৮০টি পিএসিএস কে ৩৪.৭৫ কোটি টাকার সহায়তা করা হয়েছে কম্পিউটারিজেশনের জন্য।

নতুন হিমঘর: ছটি হিমঘরের নির্মাণকাজ হাতে নেওয়া হয়েছে, এই সবকটি হিমঘরের গুদামজাত মাল রাখার ক্ষমতা ৪৯০০০ মেট্রিক টন। এই নির্মাণ এই বছরের মধ্যেই শেষ হবে।

নিয়মিত অডিট: সমবায় সমিতিগুলির সময়মত ও নিয়মিত অডিট করার উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে।

সদস্য বাড়ানো: সমবায় সমিতিগুলির সদস্যসংখ্যা বাড়ানোর জন্য বিশেষ উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে।

সমবায় ভবন: সকল জেলায় সমবায় ভবন গড়ে তোলার সিদ্ধান্ত নিয়েছে রাজ্য সরকার। এর উদ্দেশ্য সমবায় সংক্রান্ত সকল অফিস এক ছাদের তলায় নিয়ে আসা। এখন পর্যন্ত, পূর্ব বর্ধমান, পশ্চিম বর্ধমান, বাঁকুড়া, পুরুলিয়া, উত্তর ২৪ পরগনা ও মেদিনীপুরে সমবায় ভবন তৈরী হয়েছে। মালদাতেও সমবায় ভবন তৈরী করা হয়েছে।