Latest Newsসাম্প্রতিক খবর


December 23, 2018

Bangla Govt turning Fulbari Barrage into a tourist spot

Bangla Govt turning Fulbari Barrage into a tourist spot

Fulbari Barrage on the Mahananda River in Jalpaiguri district is being turned into a tourist spot, through the efforts of the State Tourism and Irrigation Departments.

On December 8, the Fulbari Barrage Park was inaugurated. This is another major project after Gajoldoba in the same district. Then of course, there is Bengal Safari Park. The Trinamool Congress Government has done a lot of improvement in the tourism sector in the district.

Rs 1 crore is being spent in the first phase for developing the park and other infrastructure like tourist cottages and a hotel, flower garden, butterfly park and snake park.

In the second phase, a ropeway would be constructed, crisscrossing the river. The tourism project would also provide employment opportunities for local youths.

Source: bengali.news18.com


ডিসেম্বর ২৩, ২০১৮

গজলডোবার পর ফুলবাড়ি ব্যারাজ, পর্যটক টানতে নয়া উদ্যোগ নিয়েছে পর্যটন এবং সেচ দফতর

গজলডোবার পর ফুলবাড়ি ব্যারাজ, পর্যটক টানতে নয়া উদ্যোগ নিয়েছে পর্যটন এবং সেচ দফতর

গজলডোবার পর ফুলবাড়ি ব্যারাজ। পর্যটক টানতে নয়া উদ্যোগ নিয়েছে পর্যটন এবং সেচ দপ্তর। একদিকে বেঙ্গল সাফারি পার্ক। অন্যদিকে ফুলবাড়ি ব্যারাজ। ৮ই ডিসেম্বর পর্যটকদের জন্য খোলা হয়েছে ফুলবাড়ি ব্যারাজ পার্ক। নদীর ধারে খোলা আকাশের নীচে প্রকৃতির ঘেরাটোপে সময় কাটানোর হদিশ দিচ্ছে রাজ্য সরকার।

পাহাড় বা ডুয়ার্স যাওয়ার আগে ট্রানজিট পয়েন্ট শিলিগুড়ি। এখন ট্রানজিট পয়েন্টেও পর্যটনের সুযোগ করে দিচ্ছে রাজ্য সরকার। অনায়াসে এক থেকে দু’রাত কাটাতে পারবেন পর্যটকরা। ৮ ডিসেম্বর পর্যটকদের জন্য খুলে দেওয়া হয়েছে ফুলবাড়ি ব্যারাজ পার্ক। আপাতত নদীর ধারে খোলা আকাশের নীচে প্রকৃতির ঘেরাটোপে নিশ্চিন্তে সময় কাটাতে পারবেন পর্যটকরা। মহানন্দা নদীর দু’ধারে তৈরী হয়েছে পার্ক। কচিকাঁচাদের জন্য খেলাধূলার ব্যবস্থাও থাকছে। পর্যটকদের কাছে ফুলবাড়ি ব্যারাজের আকর্ষণ বাড়াতেই এই উদ্যোগ।

– নদীর ধারে সৌন্দর্যায়নের উদ্যোগ পর্যটন ও সেচ দপ্তরের
– তৈরী হবে কটেজ, আধুনিক হোটেল
– থাকবে রকমারি ফুলের বাহার
– মহানন্দার ধারে তৈরী হবে বাটারফ্লাই ও স্নেক পার্ক
– দ্বিতীয় পর্যায়ে নদীর এক প্রান্ত থেকে আরেক প্রান্ত পর্যন্ত রোপওয়ে
– ইতিমধ্যেই নকশা তৈরী হয়ে গিয়েছে

শিলিগুড়ি শহরের কাছে এই পর্যটনকেন্দ্র তৈরি হয়েছে। এলাকার আর্থ সামাজিক পরিবর্তন হবে। বাড়বে ব্যবসা। এলাকার বেকার তরুণ-তরুণীরা কাজের সুযোগ পাবেন।

আপাতত ফুলবাড়ি ব্যারাজের পার্ক দেখভালের জন্য একটি বেসরকারি সংস্থার সঙ্গে চুক্তি করা হয়েছে। সংস্কারের টাকা ওঠাতে পর্যটকদের জন্য সামান্য টাকার টিকিটের ব্যবস্থা করা হয়েছে। ছুটির দিনগুলোতে পাহাড় বা ডুয়ার্সের বদলে আজকাল অনেকেই বেছে নিচ্ছেন গজলডোবা। ফুলবাড়ির পার্ক সবে চালু হয়েছে। ভিড় ক্রমে বাড়বে বলেই আশাবাদী পর্যটন দপ্তর।