Latest Newsসাম্প্রতিক খবর


June 5, 2018

NEET question paper row: Mamata Banerjee slams Centre

NEET question paper row: Mamata Banerjee slams Centre

Bengal Chief Minister Mamata Banerjee today chaired a meeting to take stock of the health situation in the State. At the end of the meeting, she expressed her satisfaction with the services provided by doctors, nurses and health workers.

The Chief Minister slammed the Centre for rising prices of life-saving medicines. She said since the Centre has increased the prices, the medicines are unavailable at many places, due to which, common people are suffering.

She also slammed the Centre for the question paper fiasco in NEET. She said, “In this year’s NEET exam, students from our State could not perform well because of problems in translation. English and Bengali papers were different. They are not giving priority to regional needs. Students who speak the local language are thus getting disadvantaged. We have already written to the Centre on this issue.”

Treatment at hospitals in Bengal is given free of cost. There has been a sea-change in the infrastructure of hospitals. Fair price medicine shops and diagnostic centres have been set up. Procedures like dialysis are performed at lower costs. Pacemakers and stents are given for free.

As a result, patients from neighbouring States and countries are coming to Bengal in large numbers, thus increasing the pressure on State hospitals. 27,000 new beds have been added.

The CM urged doctors to provide service with a smile. She also instructed the administration to prevent untoward incidents of vandalism and violence at hospitals in the State.

 


জুন ৫, ২০১৮

নিটে প্রশ্ন-বিভ্রাট নিয়ে কেন্দ্রের সমালোচনা মুখ্যমন্ত্রীর

নিটে প্রশ্ন-বিভ্রাট নিয়ে কেন্দ্রের সমালোচনা মুখ্যমন্ত্রীর

রাজ্যে সরকারি স্বাস্থ্য পরিষেবার হাল ফেরাতে সরকারের উদ্যোগের অভাব নেই। মঙ্গলবার নবান্নে রাজ্যে সরকারি হাসপাতাল ও মেডিক্যাল কলেজের প্রতিনিধিদের সঙ্গে বৈঠক করলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

বৈঠক শেষে চিকিৎসক, নার্স ও স্বাস্থ্যকর্মীদের কাজে সন্তোষ প্রকাশ করেন তিনি। মুখ্যমন্ত্রী বলেন, অনেক জীবনদায়ী ওষুধের দাম বাড়িয়ে দিয়েছে কেন্দ্র। বাজারে এখন আর পর্যাপ্ত পরিমাণে ওষুধ পাওয়া যাচ্ছে না। ফলে মানুষকে পরিষেবা দিতে গিয়ে সমস্যায় পড়তে হচ্ছে।

এদিন ডাক্তারির সর্বভারতীয় প্রবেশিকা পরীক্ষা নিটে প্রশ্ন-বিভ্রাট নিয়েও কেন্দ্রের সমালোচনা করেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তিনি বলেন, “এবারের জাতীয় স্তরের জয়েন্টে যে আমাদের ছেলেমেয়রা ভালো ফল করতে পারেনি তাতে আমরা ক্ষুব্ধ হয়েছি কারণ আমরা শুনেছি যে প্রশ্নপত্র দুটো ভাষায় আলাদা ছিল। ওরা রিজিওনাল প্রায়োরিটিটা কমিয়ে দিয়েছে, স্থানীয় ভাষায় কথা বলা, সেখানে চিকিৎসা করা থেকে ছাত্রছাত্রীরা বঞ্চিত হচ্ছে। সুতরাং আমরা এই ব্যাপারগুলো নিয়ে এমসিএ- তে কথা বলেছি, এবং কেন্দ্রীয় সরকারকে ব্যবস্থা নিতে দাবী জানিয়েছি।“

সরকারি হাসপাতালে বিনামূল্যে মেলে চিকিৎসা। তৃণমূল জমানায় সরকারি হাসপাতালগুলির পরিকাঠামোর যেমন উন্নতি হয়েছে, তেমনি রোগীদের সুযোগ-সুবিধাও অনেক বেড়েছে। চালু হয়েছে ন্যায্য মূল্যের ওষুধের দোকান। সরকারি হাসপাতালে পেসমেকার, স্টেন্টের মতো চিকিৎসা সরঞ্জাম বিনামূল্যে পাচ্ছেন রোগীরা।

ফলে এখন পড়শি রাজ্য, এমনকী ভিনদেশ থেকে অনেকেই এ রাজ্যের সরকারি হাসপাতালে চিকিৎসা করাতে আসছেন। রোগীর চাপ বেড়েছে বহুগুণ। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, “এ রাজ্য তো বটেই, পড়শি রাজ্য ও ভিনদেশের রোগীরাও সরকারি হাসপাতালে বিনামূল্যে চিকিৎসা পাচ্ছেন। ২৭ হাজার নতুন শয্যা তৈরি করা হয়েছে। চিকিৎসকরা অত্যন্ত ভাল কাজ করছেন।“

মুখ্যমন্ত্রী আরও বলেন, “ডাক্তারদের কাছেও আমার অনুরোধ থাকবে যে তারা অনেক করেন কিন্তু আরও একটু বেশী করতে হবে। তাদের হাতে সমাজসেবার মহান দায়িত্ব, তারা যেন হাসি মুখে সবাইকে দেখতে পারেন এবং মানুষরাও যাতে ডাক্তারদের ব্যথাটা বুঝতে পারে। উভয়পক্ষকেই সুন্দরভাবে বোঝাপড়া করে কাজ করতে হবে।”