Latest Newsসাম্প্রতিক খবর


June 11, 2018

Four-fold jump in infrastructure development budget since 2011: Bengal CM

Four-fold jump in infrastructure development budget since 2011: Bengal CM

In a bid to ensure overall development of the state, the Mamata Banerjee government has increased the expenditure for developing physical infrastructure “four-fold”, since 2011.

The Chief Minister tweeted on Sunday: “Infrastructure development is going on in a rapid pace in Bengal. In fact, expenditure on physical infrastructure in the state has increased almost 4-fold since 2011.”

Giving detailed information on the expenditure carried out by her government, the Chief Minister stated in the tweet: “Recently, new infrastructure projects including flyovers, rural and urban drinking water, roads and bridges, power, affordable housing, irrigation etc worth Rs 18,000 crore, have been sanctioned by our government.”

She also tweeted: “This is in addition to the Rs 25,755 crore budgetary allocation for capital expenditure, for the current financial year. These will open up huge investment opportunities and generate employment in the state.”

After coming to power, Mamata Banerjee had given equal stress on the development of both the rural and urban parts of the state. Development of roads and bridges has ensured better connectivity between different parts of the state.

 


জুন ১১, ২০১৮

পরিকাঠামোয় বরাদ্দ ৪ গুন্ বেড়েছে: মমতা

পরিকাঠামোয় বরাদ্দ ৪ গুন্ বেড়েছে: মমতা

সম্প্রতি রাজ্য সরকার পরিকাঠামো উন্নয়নে ১৮,০০০ কোটি (আঠারো হাজার কোটি) টাকা অনুমোদন করেছে। রবিবার নিজের ফেসবুক পেজে একথা জানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তিনি জানান,‘পরিকাঠামো উন্নয়নে বাংলা দ্রুতগতিতে এগিয়ে চলেছে। আগামী দিনে এর ফলে রাজ্য জুড়ে বিপুল কর্মসংস্থান ও বিনিয়োগ হবে’।

সেই অগ্রগতির বিস্তারিত ব্যাখ্যাও দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী। ফেসবুকে (এবং টুইটারে) তিনি জানিয়েছেন, ওই বিপুল বরাদ্দ রাজ্য জুড়ে উড়ালপুল, গ্রাম এবং শহরের পানীয় জল প্রকল্প, সেতু নির্মাণ, বিদ্যুৎ সরবরাহ, সস্তার আবাসন, সেচ–সহ বিভিন্ন ক্ষেত্রে পরিকাঠামো গড়তে ব্যবহার করা হবে। কিছুদিন আগেই ‘মা–‌মাটি–‌মানুষের সরকারে’–এর ৭ বছর পূর্ণ হয়েছে। গত ৭ বছরে তাঁর সরকার যে সব উন্নয়নমূলক কাজ করেছে, তার বিস্তারিত বিবরণ দিয়ে ফেসবুকে বাংলার মানুষকে অভিনন্দনও জানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা। কেন্দ্রের আর্থিক বঞ্চনা সত্ত্বেও এগিয়ে যাচ্ছে বাংলা।

মুখ্যমন্ত্রী জানিয়েছেন, পরিকাঠামো উন্নয়ন খাতে খরচ ২০১১ সালের তুলনায় ৪ গুণ বেড়েছে। সম্প্রতি ১৮ হাজার কোটি টাকার নতুন পরিকাঠামো উন্নয়ন প্রকল্পের অনুমোদন করা তো বটেই, চলতি আর্থিক বছরেও বাজেটে পরিকাঠামো উন্নয়ন খাতে ২৫,৭৫৫ কোটি টাকা বরাদ্দ ছিল। এর সঙ্গেই অতিরিক্ত ১৮ হাজার কোটি টাকা অনুমোদন করা হল। এতে রাজ্যে বিপুল বিনিয়োগের সুযোগ এবং কর্মসংস্থান তৈরি হবে।

২০১১ সালে ক্ষমতায় আসার পর মুখ্যমন্ত্রী মমতা সবচেয়ে বেশি জোর দিয়েছিলেন বিনিয়োগ ও কর্মসংস্থানের ওপর। গত ৭ বছরে তিনি কয়েকটি বিদেশ সফরে গিয়ে বিনিয়োগের বিভিন্ন চুক্তি করে এসেছেন। কাজও শুরু হয়েছে। পাশাপাশি গ্রামের চেহারা পাল্টে দিয়েছেন। রাস্তাঘাটের উন্নতি হয়েছে। কন্যাশ্রী, স্বাস্থ্যশ্রী, সবুজসাথী, জল ধরো জল ভরো–সহ বিভিন্ন জনকল্যাণমূলক প্রকল্প চালু করেছেন। মমতার স্বপ্নের প্রকল্প কন্যাশ্রী বিদেশ থেকে পুরস্কারও নিয়ে এসেছে। শিক্ষা, স্বাস্থ্য ও শিল্পে বিপুল সাফল্যের পাশাপাশি উন্নতি হয়েছে স্বাস্থ্যক্ষেত্রেও। সরকারি হাসপাতালে ন্যায্যমূল্যের ওষুধের দোকান খোলা হয়েছে। প্রচুর কলেজ এবং বিশ্ববিদ্যালয় হয়েছে। গ্রামের পড়ুয়ারা এখন স্কুলমুখী হয়েছে।

সৌজন্যে: আজকাল