Latest Newsসাম্প্রতিক খবর


June 13, 2018

Bengal Govt introduces e-pension system for teachers, Panchayat employees

Bengal Govt introduces e-pension system for teachers, Panchayat employees

The State Finance Department’s e-pension system, a revolutionary project which has also been nominated for the Skoch Award, has so far ensured initiation of pension of more than 6,000 retired employees, without delay of a single day after retirement.

Now even school teachers, employees of panchayat and civic bodies will be a part of this system too. With this initiative, an employee now receives his or her Pension Payment Order (PPO) through email, 15 days ahead of retirement.

With the introduction of the e-pension system, an employee just needs to scan all documents and upload it through a portal, the link of which is available on the website of the Finance Department . An application number gets generated as soon as the employee uploads the same. Using the application number, the employee can even track which particular stage his or her application is passing through.

The concerned officials take minimum time in clearing the files and at least 15 days before retirement, the employee gets an email with directions to go to the concerned treasury to provide details of the pension account where it will get deposited.

Source: Millennium Post


জুন ১৩, ২০১৮

শিক্ষা, পুর ও পঞ্চায়েত কর্মীদের জন্য ই –পেনশন পরিষেবা চালু করল রাজ্য

শিক্ষা, পুর ও পঞ্চায়েত কর্মীদের জন্য ই –পেনশন পরিষেবা চালু করল রাজ্য

রাজ্য সরকারের অর্থ দপ্তরের ই-পেনশন পরিষেবা ইতিমধ্যেই মনোনীত হয়েছে স্কচ পুরস্কারের জন্য। এখন পর্যন্ত ৬০০০ অবসরপ্রাপ্ত কর্মীকে নথিভুক্ত করা হয়েছে এই পরিষেবাতে। এই ব্যবস্থার ফলে সরকার নিশ্চিত করছে যেন অবসরের পর তাদের পেনশন প্রক্রিয়ায় একদিনও না দেরী হয়।

শিক্ষক, পঞ্চায়েত কর্মী, পুরকর্মীদের আর দীর্ঘদিন অপেক্ষা করতে হবে না। এই ই-পেনশনের মাধ্যমে একজন কর্মী তাঁর অবসরের ১৫ দিন আগেই পিপিও হাতে পেয়ে যাচ্ছেন।

এই পদ্ধতিতে যাবতীয় নথি স্ক্যান করে ই-পেনশন পোর্টালে আপলোড করে দিলেই চলবে। যে ব্যাক্তি ওই নথি আপলোড করবেন, তিনি সঙ্গে সঙ্গেই একটি অ্যাপ্লিকেশন নম্বর পেয়ে যাবেন। ওই নম্বরের সাহায্যে অবসরপ্রাপ্ত ব্যাক্তি সহজেই জানতে পারবে পেনশন প্রক্রিয়া কোন ধাপে রয়েছে।

সংশ্লিষ্ট আধিকারিককে বাঁধা সময়ের মধ্যে এই ফাইলের কাজ সম্পূর্ণ করতে হবে। উপভোক্তার অবসরের ১৫ দিন আগেই শেষ করতে হবে প্রক্রিয়া। এরপর, ওই ব্যাক্তি একটি ই-মেল পাবেন যাতে পরবর্তী নির্দেশাবলী দেওয়া থাকবে।