Latest Newsসাম্প্রতিক খবর


August 1, 2018

Amit Mitra lashes out at Centre for ‘attempting to control’ Finance Commission’s ToR

Amit Mitra lashes out at Centre for ‘attempting to control’ Finance Commission’s ToR

State Finance minister Amit Mitra made a scathing attack at the Centre for its “attempt” to control the Terms of Reference (TOR) of the Fifteenth Finance Commission. This comes when there would be a loss of Rs 35,849 crore for Bengal, if the 2011 census is used as TOR of the Finance Commission.

He was speaking in the state Assembly on Tuesday, during discussion over deprivation by the Centre in allocation of funds to the state government. A resolution was brought in the Assembly in this connection, in which the issue of the TOR of the Finance Commission has come up.

Amit Mitra said this is the first time when there has been attempts of the Centre in controlling the TOR of the Finance Commission, as it has been stated that “the Commission shall use the population data of 2011 while making its recommendation”.

He said: “It would lead to a loss of Rs 35,849 crore between 2020 to 2025 if the Fifteenth Finance Commission gives its recommendations on the basis of the 2011 census. In between 2020-21 and 2024-25, the state government will have to pay Rs 36,510 crore to clear its debt.”

The population share in Bengal, which was 8.16 percent in 1971, had come down to 7.67 percent in 2011.

He further said that it has been stated that the commission will examine whether revenue deficit grants would be provided at all. “This shows that it is direct intervention in a statutory body,” he said.

He further stated that there has also been steps to introduce surge charges and cess in most cases, as the state government doesn’t get its devolution from it. But in case of tax, there has to be devolution of Central tax to the states.

This comes when almost all the political parties in Bengal had demanded enhancement of devolution of Central taxes to the states from 42 percent to 50 percent before the Fifteenth Finance Commission, during its visit in Bengal.


অগাস্ট ১, ২০১৮

অসাংবিধানিকভাবে অর্থ কমিশনের কাজেও হস্তক্ষেপ করছে কেন্দ্র: অমিত মিত্র

অসাংবিধানিকভাবে অর্থ কমিশনের কাজেও হস্তক্ষেপ করছে কেন্দ্র: অমিত মিত্র

পঞ্চদশ অর্থ কমিশনের ‘টার্মস অ্যান্ড রেফারেন্স’ তৈরিতে কেন্দ্রীয় সরকার চাপ দিচ্ছে বলে অভিযোগ করলেন অর্থমন্ত্রী অমিত মিত্র।

মঙ্গলবার বিধানসভায় অমিত মিত্র বলেন, “কীভাবে অর্থ কমিশন কাজ করবে, অসাংবিধানিকভাবে কেন্দ্রীয় সরকার তার উপর নির্দেশ জারি করছে। তারাই ঠিক করে দিচ্ছে অর্থ কমিশনের টার্মস অ্যান্ড রেফারেন্স কী হবে। কেন্দ্রীয় সরকার সরাসরি হস্তক্ষেপ করছে, যা আগে কখনও হয়নি। আমরা তাই রাষ্ট্রপতির কাছে দরবার করেছি।”

২০১১’র জনসংখ্যাকে ভিত্তি করায় আমাদের রাজ্যের ক্ষতি দাঁড়াবে ৩৫,৮৪৯ কোটি টাকা। সেই সঙ্গে ২০২০ থেকে ২০২৫ পর্যন্ত আমাদের ঋণ শোধের পরিমাণ দাঁড়াবে ৩ লক্ষ ৬০ হাজার ৫১০ কোটি টাকা।

পার্থ চট্টোপাধ্যায় বলেন, “পঞ্চদশ অর্থ কমিশন রাজ্যে যখন এসেছে, তখন দলের পক্ষ থেকে আমি আর ফিরহাদ হাকিম গিয়ে দেখা করেছি। মুখ্যমন্ত্রী আর অর্থমন্ত্রী রাজ্যের দাবিদাওয়া তুলে ধরেছেন।”

কী ধরনের বঞ্চনা চলছে, তার পরিসংখ্যান তুলে ধরে অমিত মিত্র বলেন, “কেন্দ্রীয় সরকার যেভাবে অর্থ কমিশনের কাছে হস্তক্ষেপ করছে, তা অনভিপ্রেত। বিজেপি শাসিত নয়, এমন রাজ্যগুলির বরাদ্দ কমিয়ে দেওয়ার পরিকল্পনা করা হচ্ছে। আর সে কারণেই ২০১১ সালের জনগণনাকে ভিত্তি ধরা হয়েছে।”

সৌজন্যে: বর্তমান