Latest Newsসাম্প্রতিক খবর


January 6, 2019

Bangla’s own Tantuja brand on revival path

Bangla’s own Tantuja brand on revival path

Chief Minister Mamata Banerjee’s emphasis on the handloom sector has put the government’s handloom brand, Tantuja on a revival path.

Diversification in products and designs to keep pace with recent fashion trends has ensured profit for Tantuja. Importantly, the Puja season has been contributing more than 20 per cent of the total annual sales. Besides sarees, jackets and scarves too are available now.

There are 84 stores of Tantuja across the State. In 2016, it had tied up with a few big e-commerce portals to reach newer markets, including overseas.

During the 2016 Durga Puja season, through the stores, there had been a turnover of Rs 14.5 crore, in 2017, of Rs 18.5 crore and of Rs 25 crore in 2018.

The online sales too during the Puja season have been clocking impressive numbers. While it was Rs 10 crore during the 2017 season, it touched Rs 19 crore in 2019.

According to a senior official of the State Textiles Department, which runs Tantuja, in the 2017-18 fiscal, the brand had a turnover of Rs 205 crore and a profit of Rs 10.26 crore. In contrast, Tantuja had suffered a loss of Rs 12.69 crore in 2010-11 – the last financial year of the Left Front rule in the State.

In 2011-12, the very first financial year of the Trinamool Congress Government, Tantuja made a profit of Rs 69 lakh, according to the managing director of Tantuja.

The prices of products are commensurate with the design and people are getting their money’s worth.

The products are now purchased directly from self-help groups and weavers through camps in various parts of the State and payments are made directly to their bank accounts. This has eliminated the role of middlemen and the designers are getting their due. The showrooms across the state have also witnessed a major facelift.

Source: Millennium Post


জানুয়ারী ৬, ২০১৯

তন্তুজ দেখছে লাভের মুখ - সৌজন্যে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়

তন্তুজ দেখছে লাভের মুখ - সৌজন্যে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়

মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের অনুপ্রেরণায় এখন লাভের মুখ দেখছে তন্তুজ। বাংলার তন্তুশিল্পের পুনরুজ্জীবনের জন্য নানা উদ্যোগ নিয়েছে সরকার, যার ফলে লক্ষ্মীলাভ তন্তুজ-র।

বাজারের চাহিদামত আধুনিক ডিজাইনের জামাকাপড় তৈরী করার ফলে লাভের মুখ দেখল তন্তুজ। পাশাপাশি দামও রাখা হয়েছে সাধারণের সাধ্যের মধ্যে। শুধুমাত্র দুর্গাপুজোর সময়ই সারা বছরের ২০ শতাংশ বিক্রী হয়েছে তন্তুজ-র। শাড়ি ছাড়াও এখন জ্যাকেট, স্কার্ফও পাওয়া যায়।

সারা রাজ্যে তন্তুজ-র ৮৪টি বিপণন কেন্দ্র আছে। বাংলার বাইরে দেশ-বিদেশের বাজার ধরতে ২০১৬ সালে কয়েকটি ই-কমার্স সংস্থার সঙ্গে হাত মেলায় তন্তুজ।

২০১৬ সালের দুর্গাপুজোর সময় বিভিন্ন বিপণন কেন্দ্রের মাধ্যমে ১৪.৫ কোটি টাকার ব্যবসা হয় তন্তুজ-র। ২০১৭ সালে তা বেড়ে হয় ১৮.৫ কোটি টাকা। ২০১৮তে তা বেড়ে হয়েছে ২৫ কোটি টাকা। পাশাপাশি অনলাইনেও ব্যবসা বাড়ছে এই সংস্থার। ২০১৭ সালের পুজোর মরশুমে বিক্রী হয় ১০ কোটি টাকার সামগ্রী এবং ২০১৮ সালে তা বেড়ে হয় ১৯ কোটি টাকা।

রাজ্য বস্ত্র দপ্তরের এক আধিকারিক বলেন, ২০১৭-১৮ সালের অর্থবর্ষে তন্তুজ ব্যবসা করে ২০৫ কোটি টাকার এবং লাভ হয় ১০.২৬ কোটি টাকা।

প্রসঙ্গত, বাম আমলের শেষ অর্থবর্ষে অর্থাৎ ২০১০-১১ সালে তন্তুজ ১২.৬৯ কোটি টাকার লোকসান করে। ২০১১-১২ সালে, অর্থাৎ তৃণমূল কংগ্রেস পরিচালিত রাজ্য সরকারের প্রথম বর্ষে, তন্তুজ ৬৯ লক্ষ টাকা লাভ করে।