Latest Newsসাম্প্রতিক খবর


February 6, 2019

Advantage Bangla for attracting investments

Advantage Bangla for attracting investments

Bangla has several advantages with respect to industrial development:

Strategic Location

  • Gateway to south-east Asia and north-east India
  • Shares international frontiers with Bangladesh, Nepal and Bhutan
  • Well-connected with the booming hubs of Asia such as Singapore, Thailand and Malaysia
  • Hinterland comprises mineral-rich states such as Jharkhand, Orissa, Chhattisgarh
  • Naturally beautiful: The Himalayas, the Dooars, riverine delta of the Sundarbans and beaches

Robust physical infrastructure

  • 3rd largest road network of the country – of more than 3.15 lakh km
  • Natural maritime advantages – 950km of waterfront
  • Two international airports – Kolkata and Bagdogra
  • New airport in Andal has potential for becoming a major hub, as it is located in the State’s mineral-rich zone
  • Leading in the country in terms of spread, density and reach of National Inland Waterways
  • About 4,000km of railway tracks
  • 2nd largest Metro Rail network

Leading growth engine of the country

  • Largest in India in power distribution, quality and availability
  • India’s highest bank credit flow to MSMEs
  • Highest producer of vegetables in the country
  • 2nd largest in tea production
  • 3rd largest in mineral production in India
    Zero man-days lost
  • Kolkata first metro city in the country with Wi-Fi connectivity on 4G

To take advantage of these advantages, the Trinamool Congress Government has created suitable policies, which have been enumerated below:

Key reforms implemented 

  • Time-bound delivery of services enacted under Right to Public Services Act
  • Single-window system for business enacted through Single Window Act
  • Self-declaration and self-clarification introduced
  • No clearance or consent required for industries under ‘White’ and ‘exempted’ categories
  • Online web-based information dissemination
  • E-services and single window system for business
  • Industry Facilitation Centre (IFC) in every district
  • Simplification of process or procedures – decentralisation and reduced documentation
  • GIS Maps

Steps for ease of doing business

  • Dedicated single-window agency established
  • Online single-window portal for business approvals – www.silpasathi.in
    Time-bound service delivery
  • Transparency and ease of access to information
  • Business processes streamlined
  • E-platform for service delivery created
  • Online application for incentives

As a result of the implementation of various policies, the government has won several awards over the last few years. The State is also first in the country in several sectors.

Awards won

  • E-Abgari won National E-Governance Award for 2017-18
  • E-Taxation won National E-Governance Award for 2014-15
  • Integrated Financial Management System won CSI-Nihilent Award of Excellence in 2015
  • Bangla Govt won Krishi Karman Award for 5 consecutive years for record production of pulses, foodgrains (total amount), rice, coarse cereals and oilseeds

First in the country to/in …

  • integrate with e-KUBER of RBI
  • have inter-treasury transfers within the government exchequer
    generation of person-days in 100 Days’ Work Scheme, in terms of project expenditure
  • rural housing, with an investment of Rs 1,8361 crore since 2011-12
    achieve 100% implementation of Business Reforms Action Plan 2017

ফেব্রুয়ারি ৬, ২০১৯

বিনিয়োগের সেরা গন্তব্য বাংলা

বিনিয়োগের সেরা গন্তব্য বাংলা

বিনিয়োগের গন্তব্য হিসেবে বাংলার বেশ কিছু সুবিধা আছে। কয়েকটি উল্লেখযোগ্য বিষয় তুলে ধরা হলঃ

অবস্থানগত সুবিধাঃ

  • দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়া এবং উত্তর-পূর্ব ভারতের প্রবেশপথ
  • বাংলাদেশ, নেপাল ও ভুটানের সঙ্গে আন্তর্জাতিক সীমানা
  • সিঙ্গাপুর, থাইল্যান্ড এবং মালয়েশিয়ার মত এশিয়ার প্রগতিশীল হাবের সঙ্গে উন্নতমানের যোগাযোগব্যবস্থা
  • ঝাড়খণ্ড, উড়িশ্যা এবং ছত্তিশগড়ের সঙ্গে পাশাপাশি অবস্থান
  • প্রাকৃতিক সৌন্দর্যঃ হিমালয়, ডুয়ার্স, নদীর পাশের ব-দ্বীপ, সুন্দরবন এবং সুন্দর সৈকত

উন্নত পরিকাঠামো

  • দেশের তৃতীয় বৃহৎ সড়ক যোগাযোগ ব্যবস্থা – ৩.১৫ লক্ষ কিলোমিটারের বেশী
  • ভৌগলিক সামুদ্রিক সুবিধা- ৯৫০ কিলোমিটার সমুদ্রতট
  • দুটি আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর- কোলকাতা ও বাগডোগরা
  • অন্ডালের নতুন বিমানবন্দর নতুন হাবের জন্য সম্ভাবনাময় কারণ এটি খনিজ সম্পদে ভরপুর স্থানের কাছে অবস্থান করছে
  • ব্যাপ্তি, গভীরতা এবং আন্তঃদেশীয় জলপথে ভরা
  • ৪০০০ কিলোমিটার রেলপথ
  • দেশের দ্বিতীয় বৃহত্তম মেট্রো রেল যোগাযোগ ব্যবস্থা

দেশের এগিয়ে চলার চালনশক্তি

  • উন্নতমানের বিদ্যুতের সব থেকে বেশী যোগান দেওয়া হয়
  • ক্ষুদ্র, কুটির শিল্পে ব্যাঙ্ক ঋণের পরিমাণ সব থেকে বেশী
  • দেশের সব থেকে বেশী আনাজ উৎপাদক
  • দেশের দ্বিতীয় স্থানে চা উৎপাদনের দিক থেকে
  • খনিজ উৎপাদনে দেশের তৃতীয় স্থানে
  • কোনও কর্মদিবস নষ্ট হয়নি
  • প্রথম মেট্রো শহর যা ওয়াই ফাই এবং ৪জি নেটওয়ার্কে যুক্ত

এই সব প্রাকৃতিক ও ভৌগলিক সুবিধার যথাযথ সুযোগ নেওয়ার জন্য তৃণমূল কংগ্রেস যথাযথ পলিসি নিয়েছে। সেগুলি তুলে ধরা হলঃ

উল্লেখযোগ্য সংস্কার

  • নির্দিষ্ট সময়সীমায় পরিষেবা প্রদান রাইট টু পাবলিক সার্ভিসেস অ্যাক্টে
  • সিঙ্গল উইন্ডো অ্যাক্টের মাধ্যমে এক জানলা ব্যবস্থা
  • সেলফ ডিক্লারেশন এবং সেলফ ক্ল্যারিফিকেশন শুরু করা
  • হোয়াইট এবং এক্সেমটেড তালিকার কোনও ব্যবসা করতে কোনও ছাড়পত্রের প্রয়োজন নেই
    অনলাইন ওয়েব নির্ভর তথ্যের প্রচার
  • ই-পরিষেবা এবং এক জানলা ব্যবস্থা বাণিজ্যের জন্য
  • প্রতি জেলায় ইন্ডাস্ট্রি ফেসিলিটেশন কেন্দ্র খোলা
  • বিভিন্ন কাজের সহজীকরন – নথিপত্রের সংখ্যা কমানো এবং বিকেন্দ্রীকরণ
    জিআইএস ম্যাপ

ব্যবসার সহজীকরণ

  • এক জানলা ব্যবস্থা শুরু করা হয়েছে
  • একটি এক জানলা পোর্টাল ব্যাবসার অনুমোদনের জন্য – www.silpasathi.in
  • নির্দিষ্ট সময়ে পরিষেবা প্রদান
  • স্বচ্ছতা এবং তথ্যের সহজলভ্যতা
  • পরিষেবা প্রদানের জন্য ই-প্ল্যাটফর্ম তৈরী করা হয়েছে
  • ইন্সেন্টিভের জন্য অনলাইন আবেদন

এই সব নীতি চালু করার ফলে রাজ্য সরকার অনেক পুরষ্কার জিতেছে গত কয়েক বছরে। কয়েক ক্ষেত্রে দেশের সেরা হয়েছে বাংলা।

প্রাপ্ত পুরষ্কারঃ

  • ২০১৭-১৮ সালের জাতীয় ই-গভর্ন্যান্স পুরষ্কার পেয়েছে ই-আবগারি দপ্তরে
  • ২০১৪-১৫ সালে জাতীয় ই- গভর্ন্যান্স পুরষ্কার পেয়েছে ই-ট্যাক্সেসনে
  • ২০১৫ সালের সিআসআই নিহিলেন্ট পুরষ্কার পায় ইন্টিগ্রেটেড ফিনান্সিয়াল ম্যানেজমেন্ট সিস্টেমের জন্য
  • রাজ্য সরকার পরপর পাঁচবার কৃষি কর্মন পুরষ্কার পেয়েছে ডাল, খাদ্যশস্য, চাল, তৈলবীজ, মিলেটয় শস্য উৎপাদনের জন্য।

দেশে প্রথম:

  • রিজার্ভ ব্যাঙ্কের ই-কুবেরের সঙ্গে সংযুক্তিকরণ
  • সরকারি রাজস্বের আন্তঃ হস্তান্তর
  • খরচের নিরিখে ১০০ দিনের কাজে কর্মদিবস তৈরী
  • ২০১১-১২ থেকে গ্রামীণ আবাসে খরচ ১৮৩৬১ কোটি টাকা
  • বিজনেস রিফর্মস অ্যাকশন প্ল্যান ২০১৭র ১০০ শতাংশ বাস্তবায়ন