Latest Newsসাম্প্রতিক খবর


October 1, 2018

Free mosquito nets to combat dengue in villages

Free mosquito nets to combat dengue in villages

To effectively combat dengue, the State Government has decided to distribute mosquito nets for free to villagers across Bangla. The Panchayats & Rural Development Department would be distributing the mosquito nets in 3,229 gram panchayat areas.

This time has been chosen as the post-monsoon period is the prime period for the occurrence of the disease.

Women from self-help groups, numbering around 63 lakh, employed under the Anandadhara Scheme would be going around villages distributing the nets to those who cannot afford one or do not have one.

They, along with people employed under the 100 Days’ Scheme, would also go around homes to raise awareness about dengue and other vector-borne diseases, and conduct disease-related surveys. Surveys have already started in a few panchayat areas.

Source: Bartaman


অক্টোবর ১, ২০১৮

ডেঙ্গু ঠেকাতে গ্রামীণ এলাকায় গরিব মানুষকে মশারি দেবে পঞ্চায়েত দপ্তর

ডেঙ্গু ঠেকাতে গ্রামীণ এলাকায় গরিব মানুষকে মশারি দেবে পঞ্চায়েত দপ্তর

মশাবাহিত রোগের উপদ্রব কমাতে গ্রামীণ এলাকায় গরিব মানুষকে মশারি দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে রাজ্য সরকার। পঞ্চায়েত দপ্তর রাজ্যের ৩,২২৯টি গ্রাম পঞ্চায়েত এলাকায় মশারি বিলি করবে।

এজন্য আনন্দধারা স্কিমের ৬৩ লক্ষ মহিলাকে নিযুক্ত করা হবে। তাঁরা গ্রামে বাড়ি বাড়ি গিয়ে ডেঙ্গু প্রতিরোধে যেমন প্রচার চালাবেন, তেমনই সমীক্ষার কাজ করবেন। যে বাড়িতে মশারি নেই বা মশারি কেনার ক্ষমতা নেই, সেই বাড়িতে মশারি দেবেন। সরকার চায়, মশাবাহিত রোগ ঠেকাতে সকলে মশারি টাঙিয়ে ঘুমোক। সকলে যাতে মশারি ব্যবহার করেন, সেই প্রচার করবেন আনন্দধারা প্রকল্পে যুক্ত মহিলারা।

শুধু আনন্দধারা প্রকল্পের সঙ্গে যুক্ত মহিলারাই নন, গ্রাম ঘুরে ঘুরে সমীক্ষা চালাবেন ১০০ দিনের কাজে যুক্ত শ্রমিকরাও। তাঁরা বাড়ি বাড়ি প্রচার চালাবেন। বাড়িতে কোথাও যেন জল না জমে, সেব্যাপারে সতর্ক করবেন বাসিন্দাদের। কোন গ্রামে তাঁরা ঘুরলেন, তা একটি খাতা বা রেজিস্ট্রেশন বুকে লিপিবদ্ধ করতে হবে। একইসঙ্গে গ্রামের জনবহুল এলাকা, হাট-বাজারেও প্রচার চালাতে হবে। ইতিমধ্যে কয়েকটি গ্রাম পঞ্চায়েত এলাকায় কাজ শুরু হয়েছে।

বর্ষা চলে গেলে মশাবাহিত রোগের প্রকোপ দেখা দেয়। তার জন্যই এই ব্যবস্থা নিচ্ছে পঞ্চায়েত দপ্তর। গ্রামে পুকুর, ঝিল, খাল, বিল থাকে। তবে গ্রামে নর্দমা পরিষ্কার রাখার ব্যাপারে উদ্যোগী হতে বলা হয়েছে। বিভিন্ন বাগান পরিষ্কার ও পরিচ্ছন্ন রাখতে হবে।

সৌজন্যে: বর্তমান